আবুধাবি রমজানের সময় সূচি ২০২৪ – আজকের সেহরি ও ইফতারের সময়

আবুধাবি হচ্ছে আরব আমিরাতের প্রদেশের মধ্যে একটি প্রদেশ। আর আরব আমিরাতের রাজধানীর নাম হচ্ছে আবুধাবি। এটি দ্বিতীয় সর্বোচ্চ জনবহুল নগরী হিসেবে পরিচিত। বিশ্বের মুসলিম দেশ বা শহরগুলোর মধ্যে এটি একটি শহর। বাংলাদেশ থেকে অনেক প্রবাসী রয়েছেন যেখানে আবুধাবিতে বসবাস করেন। আর আজকের আলোচনার মূল বিষয় হচ্ছে সংযুক্ত আরব আমিরাতের  আবুধাবি রমজানের সময় সূচি ২০২৪। অতি শীঘ্রই পবিত্র মাহে রমজান ২০২৩ মার্চ মাসের ২৩ তারিখ হতে আবুধাবিতে শুরু হতে যাচ্ছে।

তাই আবুধাবি রমজানের সময় সূচি ২০২৪। জানতে চান তাহলে সম্পূর্ণ পোস্টটি ভালোভাবে পড়ে নিন। কেননা আজকে আলোচনা করব আবুধাবি রমজানের সময়সূচি নিয়ে। প্রতিবারের মতন সঠিক তথ্য এবং নির্ভুল রমজানের সময়সূচী নিয়ে হাজির হয়েছি। যা ইতিমধ্যে ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রকাশ করে দিয়েছেন। ইসলামী ফাউন্ডেশন থেকে নির্ভুল, আবুধাবি রমজানের সময়সূচী ২০২৩ সংগ্রহ করে আপনাদের জানানোর উদ্দেশ্যে হাজির হয়েছি।

আবুধাবি রমজানের সময়সূচি ২০২৪

রমজান মাস প্রত্যেক মুসলমানের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ এবং অপরিহার্য। এ মাস কে অপেক্ষা করে মুসলমানদের বিশেষ কার্যাদী লক্ষ্য করা যায়। এই রমজান মাসের জন্য প্রত্যেক মুসলমান সবের উদ্দেশ্যে অধিক আগ্রহে একটি বছর অপেক্ষা করে থাকে। এ মাসকে মহান রাব্বুল আলামিন মানুষদের জন্য অধিক পবিত্র করে দিয়েছেন। বলতে গেলে রমজান মাসে সিয়াম পালন করা মুসলমানদের জন্য বাধ্যতামূলক।

পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ যেমন মুসলমানদের জন্য ফরজ তেমনি রমজানে প্রত্যেকটা রোজা মুসলমানদের জন্য ফরজ এবং অধিক গুরুত্বপূর্ণ। তাই সঠিক তথ্য জেনে সিয়াম পালন করুন, ইফতারের সঠিক সময় এবং সেহরির সঠিক সময় জেনে নিন। অর্থাৎ আবুধাবি রমজানের সময়সূচী ২০২৩ ,এ পোষ্টের মাধ্যমে জেনে নিন।

আবুধাবি সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি

যারা প্রবাসী ভাই রয়েছেন আবুধাবিতে। তারা সেখানে অবস্থান থেকে সেহরি এবং ইফতারের সময়সূচি সঠিকভাবে নাও জানতে পারেন। যদি আপনি এই সম্পূর্ণ পোস্ট পড়েন তাহলে আপনি আবুধাবির সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি নির্ভুল এবং সঠিক জানতে পারবেন। তাই সময় নষ্ট না করে একটু নিচে গিয়ে দেখে নিন আবুধাবি সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি। নিম্নে আবুধাবি রমজানের সময় সূচি ২০২৩ তালিকা তারে প্রকাশ করা হলো।

রহমতের ১০ দিন

রহমতের ১০ দিন বলতে বোঝায় রমজান মাসের প্রথম দশ দিন কে, অর্থাৎ মহান রাব্বুল আলামিন এই রমজান মাসের প্রথম ১০ দিন তার বান্দাদেরকে রহমত বর্ষিত করে থাকেন। এ দশ দিন প্রত্যেক মুসলমানের জন্য অনেক ফজিলতপূর্ণ। প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন ,রোজার প্রথম ১০ দিন মহান রাব্বুল আলামিনের রহমত দ্বারা পরিপূর্ণহয়ে থাকে।
এই রমজান মাস এমন একটি মাস যে মাসে আল্লাহর কাছে থেকে তার রহমত এবং হেদায়েত পেয়ে থাকেন। রমজান মাসে রহমতের দশ দিন অনেক ফজিলতপূর্ণ। নিচের দেওয়া তালিকা থেকে জেনে নিন রহমতের দশ দিনের সময়সূচী।

মাগফেরাতের ১০ দিন

আপনারা নিশ্চয়ই অবগত আছেন যে,রমজান মাসের মাগফেরাতের ১০ দিন মহান রাব্বুল আলামিন তার বান্দাদেরকে ক্ষমা এবং মাফ করে থাকেন। রমজান মাসের দ্বিতীয় ১০ দিন আল্লাহতালার ইবাদত বন্দেগী করে যে কেউ মহান রাব্বুল আলামিনের কাছ থেকে ক্ষমা এবং মাপ চাইতে পারেন। এটি এমন একটি মাস যে মাসে মহান রাব্বুল আলামিন তার বান্দাদের মনের আশা দোয়া ও প্রার্থনা সব কবুল করে থাকেন।

অর্থাৎ এই মাগফেরাতের দশ দিনের ফজিলত পূর্ণ দিনগুলোর বর্ণনা বলে শেষ করা যাবে না। মুসলমানের জন্য অধিক গুরুত্ব পূর্ণ। যারা বর্তমানে আবুধাবিতে প্রবাসী হিসেবে রয়েছেন তারা এই মাগফেরাতের ১০ দিনের তালিকা দেখে নিন। যাতে এই ফজিলতপূর্ণ দিনগুলো আমল করতে কোনরকম অসুবিধা না হয়। নিম্ন তালিকা গুলো দেওয়া হল

নাজাতের ১০ দিন

রমজান মাসের শেষের দশ দিনকে নাজাতের ১০ দিন বলা হয়ে থাকে। নাজাত অর্থ হচ্ছে আল্লাহতালার কাছে ক্ষমা পাওয়া ,তার ভুলকে শুধরানো, আল্লাহর কাছে আত্মসমর্পণ,আল্লাহর সান্নিধ্য পাওয়া ইত্যাদি। আপনি জেনে অবাক হবেন এই নাজাতের ১০ দিনের মধ্যে একটি রাত হবে অতি গুরুত্বপূর্ণ এবং ফজিলতপূর্ণ। সে রাত হচ্ছে শবে কদরের রাত। যে রাতের ফজিলত মুসলমানের জন্য অধিক গুরুত্বপূর্ণ, অর্থাৎ এরাতে প্রত্যেক বান্দার ভাগ্য নির্ধারণ করা হয়ে থাকে।

অতঃপর যে ব্যক্তি রমজানের শুরু থেকেই মহান আল্লাহতালার কাছে আত্মসমর্পণ করে নেয়, খারাপ কাজ থেকে বিরত থাকে, মিথ্যে পরিহার করে, বেশি বেশি ইবাদত করে, সিয়াম পালন করে। সে ব্যক্তির উপর আল্লাহ তায়ালা রমজানের প্রথম দিন থেকেই অতঃপর রমজানের রহমতের দিন,মাগফেরাতের দিন, নাজাতের দিন পর্যন্ত আল্লাহ তায়ালার আশ্রয় থাকবে এবং তা সকল গুনাহ মাফ করে দেবেন। একটু নিচে গিয়ে দেখে নিন সে ফজিলতপূর্ণ নাজাতের ১০ দিনের তালিকা।

আবুধাবি আজকে সেহেরির শেষ সময়

এখন আপনাকে জানাবো আবুধাবি আজকে সেহরির শেষ সময় । একটু নিচে গেলে দেখতে পারবেন আজকের আবুধাবি সেহরির শেষ সময় কখন। কেননা যারা আবুধাবি প্রবাসী রয়েছেন তারা হয়তো সঠিক সেহরীর সময় জানতে পারবেন না। তাই যদি এই পোস্ট ভালো করে দেখে নেয় তাহলে তারা আবুধাবি আজকে সেহরির সময় জানতে পারবেন। আবুধাবির আজকের সেহরির শেষ সময়,অর্থাৎ আবুধাবি রমজানের প্রথম রোজার সেহরির শেষ সময় হচ্ছে ভোর ৫ টা ৫ মিনিট । যদি আবুধাবি রমজানের সম্পূর্ণ রোজার সেহরির শেষ সময় জানতে চান তাহলে নিচে দেওয়া তালিকাটি লক্ষ্য করুন।

আবুধাবি আজকে ইফতারের সময়

আজকে আবুধাবিতে ইফতারের শেষ সময় অনুষ্ঠিত হবে সন্ধ্যা ছয়টা ৩৬ মিনিটে। বর্তমানে যারা প্রবাসী ভাই আবুধাবিতে উপস্থিত রয়েছেন তারা নিচের তালিকা একটু লক্ষ করুন। নিচে গেলে আবুধাবি আজকের ইফতারের সময় জানতে পারবেন। যেহেতু সিয়াম পালন করবেন, তাই ইফতারের সময়টা নির্ভুল হওয়া উচিত। একদম সঠিক এবং নির্ভুল ইফতারের শেষ সময় জানতে নিচে দেওয়া তালিকা লক্ষ্য করুন।

আবুধাবি  রমজানের ক্যালেন্ডার ২০২৪

রমজান অতি নিকটে, আগামী ২৩ মার্চ হতে পবিত্র মাহে রমজান আবুধাবিতে শুরু হতে যাচ্ছে। বাংলাদেশসহ পুরো বিশ্বের কিছু মানুষ আবুধাবিতে বসবাস করে। যদি আপনি আবুধাবিতে অনেকদিন যাবত বসবাস করেন বা বর্তমানে বসবাসরত আছেন। তাহলে সময় নষ্ট না করে আবুধাবি রমজানের ক্যালেন্ডার  নিচে গিয়ে দেখতে পারেন। খুব সুন্দর করে এবং নির্ভুল তথ্য সংগ্রহ করে নিচে আপনাদের জন্য আবুধাবি রমজানের সময়সূচি ও ক্যালেন্ডার ২০২৩ সংগ্রহ করেছি। নিম্নে আবুধাবি রমজানের ক্যালেন্ডার ২০২৩ দেওয়া হলো

শেষ কথা

সিয়াম বা রোজা পালন করা প্রত্যেক মুসলমানের জন্য ফরজ। আপনি বাংলাদেশ সহ যে দেশেই অবস্থানরত থাকুন না কেন আপনার জন্য রোজা ফরজ। অতঃপর আপনাকে সঠিক নিয়ম এবং সঠিক তথ্য জেনে সিয়াম পালন করতে হবে। আজকের আলোচনার মূল বিষয় ছিল যারা আবুধাবিতে বসবাস করেন তাদের কথা চিন্তা করেই, আবুধাবি রমজানের সময় সূচি ২০২৩ আলোচনা করেছি। আশাকরি সঠিক তথ্য থেকে জানতে পারবেন। যারা আপনার মত অনেক প্রবাসী আবু ধাবিতে বসবাস করেছেন তাদেরকে এই পোস্ট শেয়ার করে জানিয়ে দিবেন। ধন্যবাদ

আরও দেখুনঃ

মালয়েশিয়া রমজানের সময় সূচি ২০২৪ – আজকের সেহরি ও ইফতারের সময়

সৌদি আরব রিয়াদ রমজানের সময় সূচি ২০২৪ – আজকের সেহরি ও ইফতারের সময়

One thought on “আবুধাবি রমজানের সময় সূচি ২০২৪ – আজকের সেহরি ও ইফতারের সময়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *